বৃহস্পতিবার, ০৬ অক্টোবর ২০২২, ০৬:১৬ পূর্বাহ্ন
ঘোষণা:
দেশের প্রতিটি জেলায় সাংবাদিক নিয়োগ চলছে।

খোকসায় সরকারি কর্মচারীকে পিটালেন পৌর কাউন্সিল

সলেমান শাহ্, কুষ্টিয়া প্রতিনিধি / ৩৭৫ বার পড়া হয়েছে
আপডেট টাইম : শনিবার, ২০ ফেব্রুয়ারী, ২০২১, ৯:০৩ অপরাহ্ন

কুষ্টিয়ার খোকসা উপজেলা সমাজসেবা কার্যালয়ের ইউনিয়ন সমাজকর্মী বিকাস কুমার সরকারকে প্লাস্টিকের চেয়ার দিয়ে মেরে গুরুতর আহত করে হাসপাতালে পাঠিয়েছেন এক কাউন্সিল। শনিবার (২০ ফেব্রুয়ারি) সকাল ১১টায় খোকসা পৌরসভা চত্ত্বরে এঘটনা ঘটে। অভিযুক্ত কাউন্সিলরের নাম হাসেম আলী। তিনি পৌরসভা ৭ নং ওয়ার্ডের নবনির্বাচিত কাউন্সিলর।
পুলিশ ও স্থানীয় সুত্রে জানা গেছে, সারাদেশের ন্যায় খোকসাতেও সমাজসেবা কার্যালয়ের সমস্ত ভাতাভোগীদের ভাতার টাকা সরাসরি ভুক্তভোগীদের নিকট পৌছে দিতে মোবাইল ব্যাংকিং (নগদ) এর হালনাগাদ কার্যক্রম শুরু হয়। এরই অংশ হিসেবে শনিবার পৌরসভায় নগদ এ্যাকাউন্ট খোলার জন্য ভাকাভোগীরা ভীড় জমায়। পরিস্থিতি স্বাভাবিক রাখতে এবং লাইন সোজা করতে ইউনিয়ন সমাজকর্মী বিপুল কুমার সরকার কাজ করছিলেন। এসময় পৌরসভার সিড়িতে বেঁধে একজন মহিলা ভাতাভোগী মাটিতে পরে গেলে নবনির্বাচিত কাউন্সিলর হাসেম আলী সমাজকর্মীকে দোষারোপ করে প্লাস্টিকের চেয়ার দিয়ে মাথায় আঘাত করে। এতে অসুস্থ সমাজকর্মী অসুস্থ হয়ে গেলে সহকর্মীরা উদ্ধার করে খোকসা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন।
এবিষয়ে আহত সমাজকর্মী বিপুল কুমার সরকার বলেন, নগদ এ্যাকাউন্ট খোলার জন্য ভাতাভোগীরা পৌরসভায় ভীড় জমায়। আমি লাইন সোজা করছিলাম তাদের। এসময় সিড়িতে বেঁধে একজন মহিলা মাটিতে পরে গেলে কাউন্সিলর মিথ্যা অভিযোগ করে চেয়ার দিয়ে মাথায় আঘাত করে। তিনি আরো বলেন, আমি অসুস্থ, এখন আর কথা বলতে পারছিনা।
এঘটনা জানতে অভিযুক্ত পৌরসভা ৭ নং ওয়ার্ড কাউন্সিল হাসেম আলীকে মুঠোফোনে ফোন দেওয়া হলে ফোনটি বন্ধ পাওয়া যায়। খোকসা পৌরসভার মেয়র তারিকুল ইসলামকে বারবার মুঠোফোনে ফোন দিলেও তিনি রিসিভ করেননি।
ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে খোকসা থানার ওসি কামরুজ্জামান তালুকদার বলেন, এবিষয়ে লিখিত অভিযোগ পেয়েছি। মামলার কার্যক্রম চলমান রয়েছে।

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন


এ জাতীয় আরো খবর...
এক ক্লিকে বিভাগের খবর