মঙ্গলবার, ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৭:১০ পূর্বাহ্ন
ঘোষণা:
দেশের প্রতিটি জেলায় সাংবাদিক নিয়োগ চলছে।

শ্রদ্ধা-ভালোবাসায় চিরবিদায়

নিজস্ব প্রতিবেদক / ৬৯ বার পড়া হয়েছে
আপডেট টাইম : শনিবার, ২৪ জুলাই, ২০২১, ৬:২৯ অপরাহ্ন

সর্বস্তরের মানুষের শ্রদ্ধা-ভালোবাসায় বিদায় নিলেন নন্দিত সংগীতশিল্পী, স্বাধীন বাংলা বেতার কেন্দ্রের শব্দসৈনিক, বাঁশীবাদক ফকির আলমগীর। কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার ও খিলগাঁও তালতলা কবরস্থানে সাধারণ মানুষ, ভক্ত ও অনুরাগীরা চোখের জলে বিদায় জানান প্রিয় শিল্পীকে।

এর আগে শনিবার বেলা ১১টায় পল্লীমা সংসদে ফকির আলমগীরের প্রথম জানাজা সম্পন্ন হয়। এ সময় তাকে গার্ড অব অনার প্রদান করা হয়। দ্বিতীয় জানাজা শেষে রাজধানীর খিলগাঁও তালতলা কবরস্থানে চিরনিদ্রায় শায়িত হলেন দেশবরেণ্য এই শিল্পী।

শুক্রবার (২৩ জুলাই) রাতে রাজধানীর একটি বেসরকারি হাসপাতালে মারা যান গুণী এই সংগীতশিল্পী। শেষ বিদায় জানাতে এসেছেন রাষ্ট্রের গুরুত্বপূর্ণ অনেকেই। বিস্ময়, এতো এতো মুখের ভিড়ে উল্লেখ কিংবা অনুল্লেখযোগ্য কোনও সংগীতশিল্পীকে চোখে পড়েনি! না, সংগীতের কেউ আসেনি এদিন!

হয়তো দুর্র্ধষ করোনাভাইরাস ও সরকারের কঠোর লকডাউনে শেষ বিদায় জানাতে আসতে পারেননি দীর্ঘদিনের সহকর্মীরা। দূর থেকে আহাজারি কণ্ঠে প্রিয় মানুষটির জন্য দোয়া ও ভালোবাসা ছড়িয়ে দিয়েছেন।

বিদায় বন্ধু, বিদায় মেহনতি মানুষের মহানায়ক। তুমি বেঁচে থাকবে বাঙালির হৃদয়ে চিরকাল। ফকির আলমগীরের চিরবিদায়ে নিষ্প্রাণ নিথর। এ সত্য কাঁদিয়েছে সবাইকে। সহকর্মী, ভক্ত ও অনুরাগীরা ভারাক্রান্ত হৃদয়ে স্বচোক্ষে দেখে বিশ্বাস করতে চান যেন এ সত্য।

মানুষের হৃদয়ে বেঁচে থাকুক এই কিংবদন্তি। মিষ্টি হাসির এই মানুষটির হাজারো স্মৃতি কাঁদিয়েছে সহকর্মীদের। তারা বলছেন, হারিয়েছেন আপনের চেয়ে আপন একজন। সংগীত অঙ্গনে তার অবস্থান পূরণ হবে না বলে মনে করছেন তার ভক্ত ও অনুরাগীরা। চলে যাওয়া মানে শেষ নয়। ফকির আলমগীর তার কর্মের মাধ্যমে চিরকাল বেঁচে থাকবেন ভক্ত-অনুরাগীদের হৃদয়ে।

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন


এ জাতীয় আরো খবর...
এক ক্লিকে বিভাগের খবর