বুধবার, ০৮ ডিসেম্বর ২০২১, ০৭:০৯ পূর্বাহ্ন
ঘোষণা:
দেশের প্রতিটি জেলায় সাংবাদিক নিয়োগ চলছে।

জ্বালানি তেল-গ্যাসের দাম কমেছে বিশ্ববাজারে

নিজস্ব প্রতিবেদক / ৪৩ বার পড়া হয়েছে
আপডেট টাইম : শনিবার, ১৩ নভেম্বর, ২০২১, ২:৪১ অপরাহ্ন
gonosomoy

বিশ্ববাজারে জ্বালানি তেল ও প্রাকৃতিক গ্যাসের দাম কমেছে গত সপ্তাহে। গেল এক সপ্তাহে অপরিশোধিত তেল এবং ব্রেন্ট ক্রুড অয়েলের দাম কমেছে প্রায় এক শতাংশ। হান্টিং অয়েলের দাম কমেছে দুই শতাংশের ওপরে। আর প্রাকৃতিক গ্যাসের দাম কমেছে প্রায় সাড়ে ১৩ শতাংশ।

বশ্বিজুড়ে ছড়য়িপেড়া মহামারি করোনাভাইরাসরে প্রকোপ ভয়াবহ রূপ নলিে গত বছররে ২০ এপ্রলি বশ্বিবাজারে ইতহিাসরে র্সবােচ্চ দরপতনরে মধ্যে পড়ে তলে। সদেনি প্রতি ব্যারলে অপরশিোধতি তলেরে দাম ঋণাত্মক ৩৭ ডলাররে নচিে নমেে যায়।

রর্কেড এই দরপতনরে পরইে অবশ্যই তলেরে দাম বাড়তে থাক।ে এতে রর্কেড দরপতনরে ধকল সামলে গত বছররে বশেরিভাগ সময় প্রতি ব্যারলে অপরশিোধতি তলেরে দাম ৪০ ডলারে আশপাশে ঘুরপাক খাচ্ছলি।

কন্তিু বশ্বিজুড়ে মহামারি করোনাভাইরাসরে সংক্রমণ নতুন করে বৃদ্ধি পাওয়া এবং লবিয়িার তলে উত্তোলন বৃদ্ধি পাওয়ায় মাঝে বশ্বিবাজারে তলেরে বড় দরপতন হয়। গত বছররে অক্টোবররে শষে সপ্তাহে অপরশিোধতি ও ব্রন্টে ক্রুড অয়লেরে দাম প্রায় ১০ শতাংশ কমে যায়।

তবে এই পতনরে ধকল কাটয়িে গত বছররে নভম্বের থকেে আবার তলেরে দাম বাড়তে শুরু কর।ে অবশ্য প্রতি ব্যারলে অপরশিোধতি তলেরে দাম ৫০ ডলাররে নচিে থকেইে ২০২০ সাল শষে হয়।

আর চলতি বছররে শুরুতে তলেরে দামরে এই বৃদ্ধরি প্রবণতা দখো যায়। কয়কে দফা দাম বড়েে করোনার মধ্যে প্রথমবার চলতি বছররে ফব্রেুয়াররি দ্বতিীয় সপ্তাহে প্রতি ব্যারলে অপরশিোধতি তলেরে দাম ৬০ ডলারে উঠে আস।ে এর মাধ্যমে মহামারি শুরু হওয়ার আগরে দামে ফরিে যায় অপরশিোধতি তলে।

আর ২০১৮ সালরে অক্টোবররে পর গত জুনে করোনার প্রকোপরে মধ্যে প্রথমবাররে মতো অপরশিোধতি তলেরে ব্যারলে ৭৫ ডলারে উঠে আস।ে আর অক্টোবরে এসে তলেরে দাম বৃদ্ধরি পালে নতুন করে যনে হাওয়া লাগ।ে এতে অক্টোবররে শষে সপ্তাহে এসে প্রতি ব্যারলে অপরশিোধতি তলেরে দাম ৮৪ ডলার ছাড়য়িে যায়। এর মাধ্যমে সাত বছররে মধ্যে র্সবােচ্চ দামে উঠে আসে তলেরে দাম।

বশ্বিবাজারে তলেরে দাম লাফয়িে লাফয়িে বাড়ার প্রক্ষেতিে গত ৩ নভম্বের দশেরে বাজারে ডজিলে ও করেোসনিরে দাম বাড়ায় সরকার। ওইদনি রাতে ডজিলে ও করেোসনিরে দাম লটিারে ১৫ টাকা করে বাড়য়িে বজ্ঞিপ্তি দয়ে বদ্যিুৎ, জ্বালানি ও খনজি সম্পদ মন্ত্রণালয়।

এই বজ্ঞিপ্ততিে বলা হয়, আর্ন্তজাতকি বাজারে জ্বালানি তলেরে দাম র্ঊধ্বগতরি কারণে ভারতসহ বশ্বিরে অন্যান্য দশে তলেরে দাম সমন্বয় করছ।ে গত ১ নভম্বের ভারতে ডজিলেরে বাজার মূল্য লটিার প্রতি ১২৪ দশমকি ৪১ টাকা বা ১০১ দশমকি ৫৬ রুপি ছলি। আর বাংলাদশেে ডজিলেরে মূল্য প্রতি লটিার ৬৫ টাকা র্অথাৎ ৫৯ দশমকি ৪১ টাকা কম।

বজ্ঞিপ্ততিে আরও বলা হয়, র্বতমান ক্রয়মূল্য ববিচেনা করে বাংলাদশে পট্রেোলয়িাম করপোরশেন (বপিসি)ি ডজিলেে লটিার প্রতি ১৩ দশমকি ০১ টাকা কমে বক্রিি করছ।ে অপরদকিে র্ফানসে অয়লে বক্রিি করছে লটিার প্রতি ৬ দশমকি ২১ টাকা কম।ে এতে করে প্রতদিনি প্রায় ২০ কোটি টাকা লোকসান দচ্ছিে বপিসি।ি অক্টোবর মাসে বভিন্নি গ্রডেরে পট্রেোলয়িাম পণ্য র্বতমান দামে সরবরাহ করায় বাংলাদশে পট্রেোলয়িাম করপোরশেনরে মোট ৭২৬ কোটি ৭১ লাখ টাকা লোকসান হয়ছে।ে

অপরদকিে গ্রাহক র্পযায়ে ভ্যাটসহ কজেতিে সাড়ে ৪ টাকা হারে বাড়য়িে ৪ নভম্বের এলপজিরি নতুন দাম নর্ধিারণ করে বাংলাদশে এর্নাজি রগেুলটেরি কমশিন (বইিআরস)ি। এতে ১২ কজেি সলিন্ডিাররে দাম ১ হাজার ২৫৯ টাকা থকেে বড়েে হয়ছেে ১ হাজার ৩১৩ টাকা।

একই হারে দাম বাড়ানো হয়ছেে সাড়ে ৫ কজে,ি সাড়ে ১২ কজে,ি ১৫ কজে,ি ১৬ কজে,ি ১৮ কজে,ি ২০ কজে,ি ২২ কজে,ি ২৫ কজে,ি ৩০ কজে,ি ৩৩ কজে,ি ৩৫ কজেি ও ৪৫ কজেি এলপজিি সলিন্ডিাররে দাম। সইে সঙ্গে রটেকিুলটেডে এবং যানবাহনে ব্যবহৃত অটোগ্যাসরে দামও বাড়ানো হয়ছে।ে

রটেকিুলটেডে পদ্ধততিে সরবরাহ করা এলপজিরি দাম ভোক্তার্পযায়ে মূসক ছাড়া প্রতি কজেি ৯৯ টাকা ৩৭ পয়সা এবং মূসকসহ প্রতি কজেি ১০৬ টাকা ১৯ পয়সা ঠকি করা হয়ছে।ে অক্টোবরে এ গ্যাসরে দাম মূসক ছাড়া প্রতি কজেি ছলি ৯৫ টাকা ১৭ পয়সা এবং মূসকসহ প্রতি কজেি ১০১ টাকা ৬৮ পয়সা।

আর যানবাহানে ব্যবহৃত অটোগ্যাসরে মূসক ছাড়া দাম প্রতি লটিার ৫৭ টাকা ৬১ পয়সা এবং মূসকসহ ৬১ টাকা ১৮ পয়সা নর্ধিারণ করা হয়ছে।ে অক্টোবরে এই গ্যাসরে দাম মূসক ছাড়া দাম প্রতি লটিার ৫৫ টাকা ২৭ পয়সা এবং মূসকসহ ৫৮ টাকা ৬৮ পয়সা ছলি।

ডজিলে ও করেোসনিরে দাম বাড়ার প্রক্ষেতিে গাড়রি ভাড়াও বাড়ানো হয়ছে।ে দশেরে বাজারে ডজিলে, করেোসনি এবং গ্যাসরে এই দাম বাড়ার সমালোচনা করা হচ্ছে বভিন্নি মহল থকে।ে সইে সঙ্গে গাড়ি ভাড়া বাড়ানোরও সমালোচনা করা হচ্ছ।ে

বসেরকারি গবষেণা প্রতষ্ঠিান সন্টোর ফর পলসিি ডায়লগরে (সপিডি)ি পক্ষ থকেে জ্বালানি তলেরে দাম বাড়ানোকে অযৌক্তকি হসিবেে উল্লখে করা হয়ছে।ে এই গবষেণা প্রতষ্ঠিানটি জ্বালানি তলে আবার আগরে দামে ফরিয়িে নওেয়ার সুপারশি করছে।ে

এ পরস্থিতিতিে গলে এক সপ্তাহে বশ্বিবাজারে জ্বালানি তলেরে দাম কমার প্রবণতা দখো গলেো। গত সপ্তাহরে শষে র্কাযদবিসে প্রতি ব্যারলে অপরশিোধতি তলেরে দাম দশমকি ৯০ ডলার কমে ৮০ দশমকি ৬৮ ডলারে দাঁড়য়িছে।ে এতে সপ্তাহরে ব্যবধানে অপরশিোধতি তলেরে দাম কমছেে দশমকি ৭৩ শতাংশ। তবে মাসরে ব্যবধানে অপরশিোধতি তলেরে দাম এখনো দশমকি ৩০ শতাংশ বশে।ি আর বছররে ব্যবধানে বশ্বিবাজারে অপরশিোধতি তলেরে দাম এখন ৬৬ দশমকি ২৮ শতাংশ বশে।ি

অপরশিোধতি তলেরে পাশাপাশি ব্রন্টে ক্রুড অয়লেরে দামও গত সপ্তাহ কছিুটা কমছে।ে গলে সপ্তাহরে শষে র্কাযদবিসে দশমকি ৭৩ ডলার কমে প্রতি ব্যারলে ব্রন্টে ক্রুড অয়লেরে দাম দাঁড়য়িছেে ৮২ দশমকি ১৪ ডলার। এতে গত এক সপ্তাহে ব্রন্টে ক্রুড অয়লেরে দাম কমছেে দশমকি ৭৩ শতাংশ। আর মাসরে ব্যবধানে কমছেে ১ দশমকি ২৫ শতাংশ। তবে বছররে ব্যবধানে ব্রন্টে ক্রুড অয়লেরে দাম এখনো ৫৮ দশমকি ৫৭ শতাংশ বশে।ি

অপরদকিে গত এক সপ্তাহে ২ দশমকি ১১ শতাংশ কমে প্রতি গ্যালন হান্টংি অয়লেরে দাম ২ দশমকি ৪০ ডলারে দাঁড়য়িছে।ে এর মাধ্যমে মাসরে ব্যবধানে হান্টংি অয়লেরে দাম কমছেে ৪ দশমকি ৬৬ শতাংশ। তবে বছররে ব্যবধানে হান্টংি অয়লেরে দাম এখনো ৬১ দশমকি ৯৭ শতাংশ বশে।ি

এদকিে জ্বালানি তলেরে পাশাপাশি গলে এক সপ্তাহে বশ্বিবাজারে প্রাকৃতকি গ্যাসরে দামও কমছে।ে গত এক সপ্তাহে প্রাকৃতকি গ্যাসরে দাম কমছেে ১৩ দশমকি ৪৫ শতাংশ। এতে মাসরে ব্যবধানে প্রকৃতকি গ্যাসরে দাম কমছেে ১৪ দশমকি ৬০ শতাংশ। তবে এরপরও বছররে ব্যবধানে প্রাকৃতকি গ্যাসরে দাম এখনো ৮৮ দশমকি শূন্য ৩ শতাংশ বশে।ি সূত্র: জাগোনউিজ

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন


এ জাতীয় আরো খবর...
এক ক্লিকে বিভাগের খবর